ঢাকা, শুক্রবার, ৭ই মাঘ, ১৪২৩ বঙ্গাব্দ, ২০শে জানুয়ারি, ২০১৭ ইং, ২১শে রবিউস-সানি, ১৪৩৮ হিজরী
bartabazar viber

কিশোরগঞ্জে জেলা বিএনপি’র সভাপতিসহ ৪১ নেতাকর্মী কারাগারে
বার্তা বাজার ডেস্ক | প্রকাশিত: অপরাহ্ণ ৬:২৭ , জানুয়ারি ১১, ২০১৭

কিশোরগঞ্জ:কুলিয়ারচর থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে পুলিশের দায়ের করা দুটি পৃথক মামলায় কিশোরগঞ্জ জেলা বিএনপি সভাপতি মো. শরীফুল আলমসহ ৪১ নেতাকর্মীকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। বুধবার কিশোরগঞ্জের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আ. ছালাম খানের আদালতে তারা আত্মসমর্পণ করে জামিন প্রার্থনা করলে আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। কারাগারে পাঠানো ৪১ নেতাকর্মীর মধ্যে মো. শরীফুল আলম ছাড়াও কুলিয়ারচর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নূরুল মিল্লাত, ভাইসচেয়ারম্যান মেসবাহ উল হক, কুলিয়ারচর পৌরসভার কাউন্সিলর আজহার উদ্দিন, কুলিয়ারচর পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন প্রমুখ রয়েছেন।
সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, কিশোরগঞ্জ জেলা বিএনপির নবগঠিত কমিটির নেতাদের জন্য গত ১২ই ডিসেম্বর ভৈরব, কুলিয়ারচর, কটিয়াদী এবং জেলা সদরে সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়েছিল। কুলিয়ারচরের দ্বাড়িয়াকান্দি ও আগরপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানকে ঘিরে পুলিশের সঙ্গে নেতাকর্মীদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এতে দুই পুলিশ সদস্য ছাড়াও বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হন। পরে পুলিশ গুলি বর্ষণ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় কুলিয়ারচর থানায় পুলিশের পক্ষ থেকে বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫(৩) ধারাসহ দ-বিধির ১৪৩, ৩৩২, ৩৫৩ ও ১১৪ ধারায় মোট ১০০ জনকে আসামী করে দুটি পৃথক মামলা (মামলা নং ৬ ও ৭) দায়ের করা হয়েছিল।

এই দুই মামলায় বুধবার জেলা বিএনপির সভাপতি শরীফুল আলম, কুলিয়ারচর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নূরুল মিল্লাত, ভাইসচেয়ারম্যান মেসবাহ উল হক, কুলিয়ারচর পৌর কাউন্সিলর আজহার উদ্দিন, কুলিয়ারচর পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেনসহ ৪১ নেতাকর্মী কিশোরগঞ্জে আমলগ্রহণকারী আদালত নং-২ এ আত্মসমর্পন করে জামিন প্রার্থনা করেন। শুনানি শেষে আদালতের বিচারক কিশোরগঞ্জের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আঃ ছালাম খান তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। জামিন শুনানিতে বিএনপি নেতাকর্মীদের পক্ষে অ্যাডভোকেট আব্দুল কুদ্দুছ, অ্যাডভোকেট জালাল উদ্দিন, অ্যাডকেট শাহ আলম প্রমুখ অংশ নেন। এ সময় আদালত চত্বরে বিপুল সংখ্যক দলীয় নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন। এর আগে সকালে নবগঠিত পূর্ণাঙ্গ কমিটি নিয়ে দলের আইনজীবী ফোরামের দুই গ্রুপের মধ্যে আদালত প্রাঙ্গণে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এসময় কয়েকটি চেয়ার ভাঙচুর করা হয়।

বার্তা বাজার.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।