ঢাকা, শুক্রবার, ৭ই মাঘ, ১৪২৩ বঙ্গাব্দ, ২০শে জানুয়ারি, ২০১৭ ইং, ২১শে রবিউস-সানি, ১৪৩৮ হিজরী
bartabazar viber

বাগেরহাটে বাপ মেয়ের অবৈধ সম্পর্কে ৫ মাসের অন্তসত্বা মাসুমা(১৫)
বার্তা বাজার ডেস্ক | প্রকাশিত: অপরাহ্ণ ৭:২৯ , অক্টোবর ১৭, ২০১৬

মোঃ মাহফুজুর রহমান বাপ্পী, বাগেরহাট ঃ বাগেরহাটের শরণখোলায় বাপ মেয়ের অবৈধ সম্পর্কের ফলে ৫ মাসের অন্তসত্বা হয় মেয়ে মাসুমা আক্তার (১৫) । ঘটনাটি ঘটেছে বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার ২ নং খোন্তাকাটা ইউনিয়নের নলবুনিয়া জানেরপাড় এলাকায় ।

জানাগেছে ওই এলাকার চরিত্রহীন লম্পট মোঃ মনিরুজ্জামান হাওলাদার (৪০) তাঁর প্রথম স্ত্রীর ঘরে একটি মেয়ে ও একটি ছেলে সন্তান লাব করেন । এর পর ওই ঘরে ছেলে ও মেয়ে বড় হতে থাকে । মেয়ের বয়স ১২, ১৩ হলে  প্রথম স্ত্রীকে তালাক দেন মনির। পরে লম্পট মনিরুজ্জামান পাশাপাশি ইউনিয়নের নুরজাহান বেগম (৩৫) নামের একজনকে দ্বিতীয় বিবাহ করেন । বিবাহের এক বছরের মাথায় নুরজাহানের ঘরে একটি ছেলে সন্তানের জন্ম হয় । এর পর থেকে লম্পট মনিরুজ্জামান তাঁর দ্বিতীয় স্ত্রী নুরজাহান বেগমের সাথে ভাল ব্যবহার না করে নিজের মেয়ের সাথে পরকীয়া গড়ে তোলে। এর ফলে একই ঘরে নুরজাহান বেগমকে তার ২ বছরের বাচ্চাকে নিয়ে আলাদা ঘুমাতে হয় । এবং নুরুজ্জামান নামের পশু লম্পট স্বামী মনিরুজ্জামান তার তালাকপ্রাপ্ত প্রথম স্ত্রীর ১৫ বছর বয়সী স্বাবালক মেয়ে মাসুমাকে নিয়ে রাত কাটায় ।

এ ঘটনা দেখে নুরজাহান বেগম স্বামীকে নিষেধ করলে লম্পট স্বামী ও মেয়ে মাসুমা দুজনে মিলে নুরজাহান বেগমকে মারপিট করতে থাকে । এক পর্যায় নুরজাহান বেগম স্থানীয় সাবেক মেম্বর মতিয়ার রহমান কে বিষয়টি অবহিত করেন,কিন্তু এতেও কোন সুরহা পায়না নুরজাহান । এ রকম চলতে চলতে এক পর্যায় মাসুমা আক্তার ৫ মাসের অন্তসত্বা হয়ে পড়েন । ঘটনা ধামাচাপা দিতে লম্পট মনির নলবুনিয়া গ্রামের মোঃ আলতাব হাওলাদার কে ডেকে শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠান । হাসপাতালে গিয়ে আলতাফ হাওলাদার নিজের স্ত্রীর গর্ভ ফালানোর কথা বলেন সিনিয়র নার্স সরজির কাছে  । এর পর থেকে ঘটনা এলাকায় জানাজানি হলে লম্পট স্বামী মনিরুজ্জামান তার মেয়েকে নিয়ে রাতের আঁধারে পালিয়ে যায় । তবে তাদের পালিয়ে যেতে সহযোগীতা করেন সহযোগী আলতাব হাওলাদার ।

এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি সদস্য মোঃ রাকিবুল ইসলাম সালেক বলেন, ঘটনা আমি শরণখোলা থানার এস আই শাহারিয়ার কাছে শুনেছি তবে এর বিচার হওয়া দরকার । এলাকায় এ নিয়ে চলছে ব্যাপক আলোচনা সমালোচনা । এ ঘটনায় বাদী হয়ে স্ত্রী নুরজাহান বেগম মামলা করবেন বলে সাংবাদিকদের জানান । তবে শরণখোলা থানার ওসি মোঃ আঃ জলিল ষ্টেশনে না থাকায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্বব হয়নি ।

বার্তা বাজার.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।